আগামীকাল থেকে সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ

0
24

নভেল করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে স্কুল-কলেজসহ সবধরনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। আজ সোমবার বিকেলের দিকে এ বিষয়ে চূড়ান্ত আদেশ জারি হবে। শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানিয়েছেন, আগামীকাল মঙ্গলবার (১৭ মার্চ) থেকে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হবে। আপাতত আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব আকরাম-আল-হোসেন বলেন, ‘শিক্ষা মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত নিয়েছে আমরাও বন্ধ ঘোষণা করবো। বিকেলে বৈঠক করে বিষয়টি চূড়ান্ত করা হবে।’

অবশ্য সরকারের ঘোষণার আগেই একে একে বন্ধের ঘোষণা আসে ঢাকার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে। গতকাল রোববার থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য ক্লাস-পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা দেয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০টি বিভাগ ও ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থীরা। এমনকি  করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে সুরক্ষা পেতে অবিলম্বে ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধের দাবিতে অনশনেও বসেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শিক্ষার্থী। বিশ্ববিদ্যালয় সাময়িক বন্ধ ঘোষণাসহ পাঁচ দফা দাবি জানিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু)। শিক্ষক সমিতি ও সাধারণ শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে আজ জরুরি সভা ডেকেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। পরিস্থিতি মোকাবেলায় শিক্ষার্থীদের গ্রীষ্মকালীন ছুটি এগিয়ে নিয়ে শিক্ষা কার্যক্রম সাময়িক স্থগিত ঘোষণা করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে মুক্ত থাকতে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) সব বিভাগের শিক্ষার্থীরা ক্লাসে না যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। ক্লাস-পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) সব অনুষদের শিক্ষার্থীরাও। একই রকম ঘোষণা দিয়েছে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) শিক্ষার্থীরা।

করোনার কারণে একাডেমিক কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়েছে—এমন খবর ছড়িয়ে পড়ার পর হল ছাড়তে শুরু করেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থীরা। তবে কলেজ কর্তৃপক্ষ পরে জানিয়েছে, কার্যক্রম স্বাভাবিক রয়েছে।

১৮ থেকে ২৮ মার্চ পর্যন্ত স্কুল বন্ধ থাকবে বলে গতকাল ঘোষণা দিয়েছে রাজধানীর স্কলাস্টিকা স্কুল। শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের কাছে পাঠানো ই-মেইলে এ ছুটিকে বসন্তকালীন ছুটি হিসেবে উল্লেখ করেছে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতিবিষয়ক সংস্থা ইউনেস্কো জানিয়েছে, এরই মধ্যে ৬১ দেশে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আংশিক বা পুরোপুরি বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। জাতীয়ভাবে বন্ধ করা হয়েছে ৩৯টি দেশে। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে ৪২ কোটি ১৩ লাখ ৮৮ হাজার ৪৬২ শিক্ষার্থীর।

ঘোষণা ছাড়াই একে একে বন্ধ হচ্ছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

সূত্র : বনিক বার্তা